TahMiD's Blog! Tech, Science Writer & Blogger

অবশেষে মঙ্গলে পাঠানো নাসার Opportunity রোভার ডেড!

নাসা এক প্রেস কনফারেন্সে এটা নিশ্চিত করেছে, মঙ্গলে পাঠানো তাদের Opportunity রোভার অফিশিয়ালভাবে ডেড! তারা রোভারটির সাথে লাস্ট কন্টাক্ট করার চেষ্টা করে কিন্তু বদলে কোনই সিগন্যাল ফেরত আসেনি। এখন রোভারটি মঙ্গলের বেজান সার্ফেসের উপরে কেবলই একা, নিঃসঙ্গ, আর এভাবে থেকে যাবে আমাদের সাথে কথা না বলে!

যেহেতু আমি মার্স মিশন প্রেমি, মঙ্গলের প্রায় সকল আপডেট রাখতে পছন্দ করি, তাই এটা আমার কাছে এটা বড় শোক। যদিও নাসা এটাকে শোক হিসেবে দেখছে না, তাদের এই মিশনটি অসম্ভব সফলতা অর্জন করেছে। কেননা এটাকে মাত্র ৯০ দিনের একটি মিশনের জন্য পাঠানো হয়েছিলো, বা আশা করা হয়েছিলো এটা কেবল ৯০ দিন লাস্টিং করবে। কিন্তু উল্টা ১৫ বছর ধরে মঙ্গলে রয়েছে, কাজ করে চলেছে। এটাকে বিশাল সফলতাই বলা চলে!

যানটিতে পাওয়ারের ঘাটতি দেখা দিয়েছে, সেক্ষেত্রে এটি কিভাবে আর কমুনিকেশন করতে পারবে বলুন? কয়েক মাস পূর্বে এক ভয়াবহ ধুলো ঝড়ের কবলে পড়েছিল বেচারা রোভারটি, তারপরে এর সোলার প্যানেল গুলোতে বেশ ধুলো জমে যায়, যার ফলে ঠিক মতো পাওয়ার পাচ্ছিল না এই যানটি। মোটামুটি ২০১৮ এর জুনের দিক থেকে আমাদের সাথে কথা বলেনি রোভারটি।

এর অ্যাডমিন প্যানেলের ইঞ্জিনিয়াররা আশা রেখেছিলেন একবার এর সোলার প্যানেল থেকে ধুলোবালি পরিস্কার হয়ে গেলে আবার রোভারটি বুট নেবে এবং আমাদের সাথে কথা বলবে। কিন্তু যানটিতে অনেক ফিজিক্যাল ড্যামেজ হয়েছে ইতিমদ্ধে তা সন্দেহ করা হয়।

যাই হোক, Opportunity আমাদের অনেক কিছু প্রদান করেছে, যার জন্য আমরা চির কৃতজ্ঞ। এটিই প্রথম আমাদের জানিয়েছিল যে মঙ্গলের সার্ফেসে কখনো একসময় তরল পানির সমুদ্র বইত। তাছাড়া এটি মঙ্গলের বায়ুমণ্ডল সম্পর্কে অনেক মূল্যবান ডাটা প্রদান করতে সক্ষম হয়েছিলো।

অবশ্যই বর্তমানে আমরা মঙ্গল অভিযানে অনেকটায় এগিয়ে গেছি। নাসার InSight lander মঙ্গলে পৌছা পৌছা, সাথে ExoMars এবং Mars 2020 রোভার গুলোকে দ্রুতই ছেড়ে দেওয়া হবে। কিন্তু Opportunity রোভার এই মহাকাশ বিজ্ঞানকে যা উপহার দিয়েছে, সেটা ভুলবার নয়!

লেখকের সম্পর্কে

Tahmid Borhan

ইন্টারনেটে অধিকাংশ রিডার আমাকে প্রযুক্তি ব্লগার এবং একজন টেকগীক হিসেবেই চেনেন। এছাড়াও আমি ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করে থাকি, নতুন নতুন জিনিষ শিখতে এবং এক্সপ্লোর করতে ভালোবাসি, প্রচণ্ড মুভি দেখি ও গান শুনি, বিজ্ঞান চর্চা করতে ভালোবাসি।

ঠিক যখনই আমি জীবনের অর্থ খুঁজে পেলাম, সে তা বদলে দিল!

Add comment

TahMiD's Blog! Tech, Science Writer & Blogger

Tahmid Borhan

ইন্টারনেটে অধিকাংশ রিডার আমাকে প্রযুক্তি ব্লগার এবং একজন টেকগীক হিসেবেই চেনেন। এছাড়াও আমি ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করে থাকি, নতুন নতুন জিনিষ শিখতে এবং এক্সপ্লোর করতে ভালোবাসি, প্রচণ্ড মুভি দেখি ও গান শুনি, বিজ্ঞান চর্চা করতে ভালোবাসি।

ঠিক যখনই আমি জীবনের অর্থ খুঁজে পেলাম, সে তা বদলে দিল!